বুধবার, ০১ ডিসেম্বর ২০২১, ০৪:০৫ অপরাহ্ন
সর্বশেষ সংবাদঃ
ফরিদপুরে জ্ঞানের আলো ট্রাস্ট কর্তৃক শ্রেষ্ঠ শিক্ষকদের সম্মাননা প্রদান ফরিদপুরের কানাইপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের সভাপতি সাইফুল ইসলাম কামাল ফরিদপুর পৌরসভায় অবকাঠামো নির্মান কাজের শুভ উদ্বোধন ভাঙ্গা ইউপি নির্বাচনে নিক্সন সমর্থিত ১১ ও জাফরউল্লাহ সমর্থিত ১ জন জয়ী ভোক্তা-অধিকার সংরক্ষণ আইন বাস্তবায়ন বিষয়ক সেমিনার অনুষ্ঠিত সালথায় রামকান্তপুর ইউপির প্রতিবন্ধী ভাতার যাচাই-বাছাই অনুষ্ঠিত ফরিদপুরের বিশিষ্ঠ সমাজসেবক মাশুক চৌধুরীর জানাযা সম্পন্ন ফরিদপুর পৌরসভায় পুষ্টি বিষয়ক কর্মশালা অনুষ্ঠিত ফরিদপুর প্রেসক্লাবের উন্নয়নে এক লক্ষ টাকার অনুদান দিলেন সমাজসেবক মহসিন শরীফ চরভদ্রাসন ইউপি নির্বাচনে তিন স্বতন্ত্র প্রার্থী নির্বাচিত

ফরিদপুরে বিদ্যালয়ের দপ্তরীর বিরুদ্ধে মালামাল চুরির অভিযোগ

  • Update Time : শনিবার, ২ অক্টোবর, ২০২১, ৮.৪২ পিএম
  • ৩১৫ Time View
ফরিদপুরে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মালামাল চুরি
ফরিদপুরে সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের মালামাল চুরি

ফরিদপুরে বিদ্যালয়ের দপ্তরীর বিরুদ্ধে মালামাল চুরির অভিযোগ

স্টাফ রিপোর্টার : চুরি করে স্কুলের মালামাল বিক্রি করার দায়ে ঐ স্কুলের দপ্তরীসহ এক হকারকে আটক করেছে ফরিদপুর কোতয়ালী থানা পুলিশ। গত ১৩ ই সেপ্টেম্বর তাদের আটক করে পুলিশ। তবে এই বিক্রির নেপথ্যে ঐ দপ্তরির সাথে আরো কেউ জড়িত রয়েছে কিনা সে বিষয়ে প্রশ্ন জেগেছে সচেতন মহলের মনে। ঘটনাটি ঘটেছে ফরিদপুর সদর উপজেলার ৪০ নং শিবরামপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে।

এ বিষয়ে গত ৯ই সেপ্টেম্বর বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আইরিন পারভিন বাদি হয়ে দপ্তরী কাম নৈশ প্রহরী মো: রাজিব খান এর বিরুদ্ধে ফরিদপুর কোতায়ালী থানায় একটি মামলা দায়ের করেন, যার নং ৩৫। মামলা নথি থেকে জানা জানা যায়, গত ১২ ই জুন থেকে ২২ শে আগস্ট সরকার ঘোষিত কঠোর লকডাউন চলাকালিন বিদ্যালয় বন্ধ থাকার সময়ের মধ্যে ঐ স্কুলের দপ্তরী কাম নৈশ প্রহরী মো: রাজিব খান স্কুলের বিভিন্ন মালামাল বিক্রি করে দেয়।

যার মধ্যে লোহাড় ফ্রেমের ৬০ জোড়া বেঞ্চ ও ১০ টি চেয়ারসহ ৬টি টেবিল, ২ টি ইনটেক্ট টিউব লাইট ও ১০ টিউব লাইটের টিউব, মেরামত যোগ্য ১০০ জোড়া বেঞ্চ এর লোহাড় ফ্রেমসহ ৯ টি সিলিং ফ্যান, পুরাতন ৫ টি টেবিল ও ৮ টি চেয়ারের লোহাড় লোহাড় ফ্রেম, যার আনুমানিক মুল্য ৩ লক্ষ ১০ হাজার টাকা বলে মামলার নথিতে উল্লেখ করা হয়েছে।

উল্লেখিত চুরির মালামাল পাশ্ববর্তি এক হকারের নিকট বিক্রি করে রাজিব। এদিকে স্কুল খোলার পর প্রধান শিক্ষক গত ২৩ শে আগস্ট বিষয়টি জানার পরেও দপ্তরির বিরুদ্ধে কোন ধরনের বিভাগীয় ব্যাবস্থা বা আইনি পদক্ষেপ কেন গ্রহন করেননি, এনিয়ে স্থানীয়দের মাঝে এক প্রশ্ন দেখা দিয়েছে। এ বিষয়ে স্থানীয়রা অভিযোগ করে জানান, ৪ বছর আগে ঐ স্কুলের সহকারি শিক্ষক মজিদ এর ভাগ্নে হওয়ার সুবাদে রাজিব নিজস্ব প্রভাব খাটিয়ে দপ্তরীর চাকরি বাগিয়ে নেয়।

স্কুলের চাকরির সুত্র ধরে বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক মজিদ এর ছত্রছায়ায় সে বিভিন্ন সময় নানা ধরনের অনৈতিক কর্মকান্ডে লিপ্ত হয়। এমনকি প্রায় প্রতিনিয়তই সন্ধ্যার পরে এলাকার উৎশৃঙ্খল যুবকদের নিয়ে স্কুলের ভিতরই মাদক সেবনে মেতে উঠে যা সন্ধ্যার পর বিদ্যালয় প্রাঙ্গন মাদকের অভয়ারণ্যে পরিণত হয়। এর আগে ঐ স্কুলের ভিতরে অবস্থানকালীন সময় নারী কেলেংকারীর ও অভিযোগ রয়েছে।

স্থানীয় সুত্রে আরো জানা যায় এই চুরির ঘটনা গত ২৩ শে আগস্ট থেকে ৮ ই সেপ্টেম্বর পর্যন্ত মোটা অংকের টাকার বিনিময়ে ধামা চাপা দেওয়ার জন চেষ্টা চলে। তবে বিষয়টি উর্ধতন কর্তৃপক্ষ অবগত হলে বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আইরিন পারভিন বাধ্য হয়ে ৯ ই সেপ্টেম্বর কোতয়ালী থানায় ঘটনার অর্ধমাস পরে এসে মামলা দায়ের করেন। এ ছাড়াও বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক মজিদ, একটি এনজিও প্রতিষ্ঠান এর মাধ্যমে বিভিন্ন অসহায়দের টাকা আতœসাৎ করায় তার বিরুদ্ধে একাধিক মামলা রয়েছে বলে স্থানীয় সুত্রে জানা গেছে।

চুরির বিষয়টি জানার জন্য এই প্রতিবেদক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আইরিন পারভিন এর সাথে যোগাযোগ করলে “চুরির কোন তথ্য দেওয়ার কথা অস্বীকার করে তিনি জানান, আমি এমনিতেই চাপে আছি, এটা আমাদের একান্তই নিজস্ব বিষয়, আমরা আপনাদের তথ্য দিতে পারব না। অনেক যায়গায় বিভিন্ন দুর্নীতি হলেও সেখানে না গিয়ে আমাদের এখানে এসেছেন কেন? তার নিকট থেকে কোন তথ্য না পেয়ে ফিরে আসার একপর্যায়ে ঐ প্রধান শিক্ষক চুরির ঘটনা খবরের কাগজে প্রকাশ করতে নিষেধ করেন”।

এর আগে প্রধান শিক্ষকের সাথে কথা বলার একপর্যায়ে বিদ্যালয়ের সহকারি শিক্ষক মজিদ এর দেখা পেলেও কিছু সময় পর তার সাথে কথা বলার চেষ্টা করা হলে তাকে পাওয়া যায়নি। এ বিষয়ে স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি গৌতম কুমার সাহা চুরি হওয়ার ঘটনা সত্যতা নিশ্চিত করে জানান মামলার সুত্র ধরে দপ্তরী রাজিবকে আটক করেছে পুলিশ। আমরা তাকে বহিষ্কার করেছি। তবে সংবাদটি প্রকাশ না করতে অনুরোধ করেন তিনি।

উল্লেখিত বিষয়ে সহকারি উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার মো: দেলোয়ার হোসেন জানান, উপজেলা নির্বাহি অফিসার এর নিকট স্কুল কর্তৃপক্ষের দেওয়া লিখিত অভিযোগ মারফত আমরা বিষয়টি জেনেছি। অভিযুক্ত দপ্তরীর বিরুদ্ধে মামলা হয়েছে। প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার নার্গিস জাফরীর সাথে মুঠোফোনে কথা হলে তিনি অভিযুক্ত রাজিবের বিষয়ে নানা অভিযোগের কথা তুলে ধরে চুরি করে মালামাল বিক্রির বিষয়ে সত্যতা নিশ্চিত করেন।

এ বিষয়ে জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার তৌহিদুল ইসলাম জানান, কয়েকদিন আগে উপজেলা শিক্ষা অফিসার মৌখিক ভাবে আমাকে অবগত করেছে। বিষয়টি নিয়ে মামলা হয়েছে। তবে স্কুলের দপ্তরীর কর্মকান্ড পুর্ব থেকেই অশোভনীয়। নির্ভরযোগ্য সুত্রে জানা গেছে চুরির মামলায় বর্তমানে তারা জামিনে মুক্তি লাভ করেছে। এদিকে ঘটনার সুষ্ঠ তদন্ত পুর্বক চুরির নেপথ্যনায়কদের দৃষ্টান্তমুলক শাস্তি দাবি করে বিদ্যালয়কে মাদকের অভয়ারণ্য থেকে রক্ষা করতে জন্য সংশ্লিষ্ট মহলের সদয় হস্তক্ষেপ কামনা করেছে এলাকাবাসী। (ধারাবাহিক পর্ব)

Prayer Timer

Prayer Timer

Share

আরও সংবাদ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Jamat Salat Time and Date

Jamat Salat Time and Date

যোগাযোগঃ- এস-টেক সপ
৩১,৩২ রাকিবউদ্দীন পৌর মার্কেট গোয়লচামট,ফরিদপুর।
মোবাইলঃ 01733160122
ওয়েবঃ https://s-techshop.com

অটো ব্রিকস্

অটো ব্রিকস্

স্বয়ংক্রিয় মেশিনে উৎপাদনকৃত

© স্বত্ব দৈনিক নাগরিক দাবী  - ২০১৯-২০২১
Design by S-Tech Shop